বলিউড অভিনেতা ইরফান খান মারা গেছেন

নিউজ ডেস্ক আপডেট:২৯ এপ্রিল, ২০২০ বলিউড অভিনেতা ইরফান খান মারা গেছেন

ভারতের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেতা ইরফান খান আর নেই। মুম্বাইয়ের কোকিলাবেন ধিরুবাই আম্বানি হাসপাতালে ২৯ এপ্রিল শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস এ খবর নিশ্চিত করে। তার বয়স হয়েছিল ৫৪ বছর।

অভিনেতা ইরফান খান দীর্ঘদিন ধরে ক্যান্সারে ভুগছিলেন। সম্প্রতি তার মায়ের মৃত্যু হয়। সেই শোক সামলে ওঠার আগেই গত ২৮ এপ্রিল রাতে কোলন ইনফেকশন সমস্যা নিয়ে মুম্বাইয়ের কোকিলাবেন ধিরুবাই আম্বানি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন ইরফান।

সেখানে তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রাখা হয়েছিল। তবে এ যাত্রায় আর শেষ রক্ষা হয়নি। কোটি কোটি ভক্তকে কাঁদিয়ে না ফেরার দেশে পাড়ি জমালেন হিন্দি সিনেমার জাদরেল এই অভিনেতা। তার মৃত্যুতে বলিউডে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

প্রসঙ্গত, দীর্ঘদিনের ক্যারিয়ারে অসংখ্য সিনেমায় দর্শকের মন ভরিয়েছেন তিনি। হিন্দি ভাষা ছাড়াও বিশ্বের নানা ভাষার ছবিতে তাকে দেখা গেছে।

ক্যান্সার চিকিৎসা নিয়ে জনসম্মুখে কথা বলার দুই মাস পর তিনি এ বিষয়ে তার অভিজ্ঞতা নিয়ে একটি খোলা চিঠি লেখেন। যেখানে তিনি ক্যান্সারের চিকিৎসা নেয়ার সময় তার কষ্টের তীব্রতা এবং জীবনের অনিশ্চয়তার বিষয়টি তুলে ধরেন।

বিশ্বের নানা প্রান্ত থেকে তার ভক্তরা তাকে বাধ ভাঙা সমর্থন জানান।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তার প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন বলিউড তারকা এবং ভারতের রাজনীতিবিদরা।

মি. খানের পিআর সংস্থা এক বিবৃতিতে তার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, "প্রিয়জন, পরিবারের সদস্য যাদেরকে তিনি অত্যন্ত ভালবাসতেন, তার সব উত্তরাধিকারের মায়া পেছনে ফেলে তিনি স্বর্গে পাড়ি জমিয়েছেন। আমরা সবাই প্রার্থনা করছি তার আত্মা শান্তিতে থাকুক।"

সুপারস্টার অমিতাভ বচ্চন যিনি 'পিকু' চলচ্চিত্রে তার সাথে অভিনয় করেছেন তিনি এক টুইটারে বলেন, "চলচ্চিত্র দুনিয়ার এক অবিশ্বাস্য প্রতিভা...বিনীত সহকর্মী...কর্মঠ কর্মী... খুব জলদি আমাদের ছেড়ে চলে গেলেন...অনেক বড় শূন্যতা তৈরি করে দিয়ে চলে গেলেন।"

বলিউড অভিনেত্রী রাভিনা ট্যানডন এক টুইটে বলেছেন, "চমৎকার একজন সহ-অভিনেতা, অন্যতম শ্রেষ্ঠ একজন অভিনেতা এবং একজন সুন্দর মনের মানুষ ছিলেন তিনি।"

ভারতে টুইটারের টপ ট্রেন্ডের প্রথম চারটিই ইরফান খান বিষয়ক। অনেকেই তার প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন।

২০১৩ সালে 'পান পান সিং তোমার' নামে একটি বায়োপিক সিনেমার নাম ভূমিকায় অভিনয়ের জন্য মি. খান ভারতের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরষ্কার পান। ওই চলচ্চিত্রের একজন অ্যাথলেটের জীবনী নিয়ে নির্মিত হয়েছিল যিনি পরবর্তীতে ডাকাত হয়ে যান।

Source: www.jagonews24.com

করোনা ভাইরাস - লাইভ আপডেট

# দেশ আক্রান্ত মৃত সুস্থ